ভিনেগার কি বা কাকে বলে ? ভিনেগারের কাজ, ব্যবহার এবং সংকেত

বন্ধুরা এই আর্টিকেলে আমি কথা বলবো ভিনেগার কি?

ভিনেগার কি বা কাকে বলে
ভিনেগার কাকে বলে?

ভিনেগার হলো এমন একটি পদার্থ যা এসিটিক এসিড এর ৪-১০% পানির মিশ্রনে তৈরি হয়। ভিনেগার নামটির সাথে আমরা সবাই পরিচিত। চিনি বা ইথানল কে গাজন প্রক্রিয়ার মাধ্যমে এসিটিক এসিডে পরিনত করা হয়। ভিনেগার বিভিন্ন ধরনের ফল মুলের সমন্বয়ে তৈরি হয়। যেমন আপেল, নারিকেল, খেজুর আখ টমেটো ইত্যাদি দিয়ে ভিনেগার প্রস্তুত করা হয়।

শস্য হিসেবে চাউল, গম মধু দিয়ে ভিনেগার তৈরি করা হয়। এ সকল ফল বা শস্যের নাম অনুসারে ভিনেগারের নামকরন করা হয়ে থাকে।

ভিনেগার কাকে বলে? ভিনেগারের কাজ কি? ভিনেগারের ব্যবহার এবং সংকেত সম্পর্কে নিচে বিস্তারিত জেনে নিন।

ভিনেগার কি বা কাকে বলে?

বিভিন্ন ধরনের ফলের রসের সাথে এলকহল ইথানল ইত্যাদি মিশিয়ে ভিনেগার তৈরি করা হয়। নির্দিষ্ট কতগুলো ব্যাক্টেরিয়ার মাধ্যমেও ভিনেগার প্রস্তুত করা হয়। এটি সাধারনত রান্নার কাজে ব্যবহার করা হয়ে থাকে।

ভিনেগার এর কাজ কি?

রান্নার কাজে ব্যবহারের পাশাপাশি ভিনেগার আমাদের আরও অনেক কাজে ব্যবহার করা হয়। এতি আমাদের ত্বককে সুন্দর করার ক্ষেত্রে কিংবা তককে পরিচর্রযার ক্ষেত্রে খুব গুরুত্বপুর্ণ ভুমিকা পালন করে। ভিনেগার রান্নার সময় সালাড চাটনি তৈরিতে ব্যবহার করা হয়। বিদেশি রান্নার ক্ষেত্রে ভিনেগার একটি খুবই গুরুত্বপুর্ণ বস্তু হিসেবে ব্যবহার করা হয়ে থাকে। শুধু রান্নার কাজেই নয় ভিনেগার আমাদের চিকিৎসার ক্ষেত্রেও ব্যবহার হয়ে থাকে।

ভিনেগারের কাজ এবং উপকারিতা

ভিনেগার নানা রকম রোগ নিরাময়ে সাহায্য করে। ডায়াবেটিস কোলেস্টেরন, কিডনির সমস্যা হ্রদরোগ হাইপার টেনশন ইত্তাদির মত জটিল রোগে ভিনেগার খুবই সহযোগি। এছারা চুলের সাস্থ রক্ষায় রোদে পোড়া দাগ নিরাময়ে সরিরের গন্ধ দুর করতে ভিনেগার সহায়তা করে থাকে।

ভিনেগার দুই ধরনের হয়ে থাকে।

সাধারন বা সাদা ভিনেগার এবং আপেল সিডার ভিনেগার।

ভিনেগারের সংকেত কি?

ভিনেগারের সংকেত হলো CH3COOH.

ভিনেগারকে এসিটিক এসিড বলা হয়। অ্যাসিটিক এসিডের সংকেত ও হলো CH3COOH.

তো বন্ধুরা আমি ভিনেগার কি এই বিষয়ে এই আরটিকেল টি লিখেছি। তেমন বিস্তারিত কিছু লিখতে পারি নি। অল্প কথায় শেষ করেছি। আসা করি আরটিকেল টি আপ্নার ভালো লেগেছে। ধন্যবাদ, আমার ব্লগে আবার আসবেন।

Leave a Comment